ছেলেরাও কাজ পেতে বিছানায় যায়: একতা কাপুর

0
74
views

সিরিয়াল এবং চলচ্চিত্রের সঙ্গে বলিউডে নিজের জায়গা তৈরি করেছেন পরিচালক একতা কাপুর। সম্প্রতি তিনি জানিয়েছেন, বলিউডে এমন কিছু অভিনেতা আছেন যাঁরা কাজ পেতে তাঁদের যৌনতা ব্যবহার করে থাকেন।

বিশ্বজুড়ে চলছে যৌন হেনস্তার জোর বিতর্ক। হলিউডের চলচ্চিত্র প্রযোজক হার্ভে ওয়েইনস্টেইনের বিরুদ্ধে একাধিক অভিনেত্রীর যৌন হয়রানির অভিযোগ ওঠার পর বলিউডের ভেতরেও এমন যৌনশোষণ হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

একতার মতে, ওয়েইনস্টেইনের ঘটনাটি কেবলমাত্র যৌনতার সঙ্গে সম্পর্কিত নয়। এর সঙ্গে ক্ষমতা দখলের বিষয়টিও জড়িত। আর এটাই বাস্তব। তিনি যোগ করেন, এই ঘটনা হার্ভে ওযয়েনস্টেইন পর্যন্ত সীমাবদ্ধ নয়। বলিউডে এমন অনেক পরিচালক বা প্রযোজক আছেন যাঁরা অনেকেই এই যৌন হেনস্থার শিকার হয়ে থাকেন। পাশাপাশি এমন কিছু অভিনেতা বা অভিনেত্রী আছেন তাঁরা স্বেচ্ছায় নিজেদের যৌনতা ব্যবহার করে থাকেন কেবলমাত্র কাজ পাওয়ার আশায়। তিনি বলেন, ‘আমি বিশ্বাস করি যে শিকারিকে ক্ষমতার ওপর ভিত্তি করে একটি বাক্সে রাখা উচিত নয়। তবে এটা সর্বদা সত্য নয় যে, যার ক্ষমতা নেই তারাই একমাত্র এই ঘটনার শিকার হয়ে থাকেন।’

এক সংবাদমাধ্যমের পক্ষ থেকেই এই আলোচনাসভার আয়োজন করা হয়েছিল। যেখানে একতার পাশে হাজির ছিলেন অভিনেত্রী নিমরত কউর। তাঁর সামনেই একতাকে প্রশ্নটি করেন বরখা দত্ত। যাঁর উত্তরে একতা জানান, কেবলমাত্র কেউ ইন্ডাস্ট্রিতে ভাল জায়গায় রয়েছে বলেই কাউকে দোষারোপ করা উচিত নয়। অভিনেতা-অভিনেত্রীরাও কাজ পেতে নিজেদের শরীরকে ব্যবহার করেন।

‘ধরা যাক, একজন উঠতি অভিনেতা কিংবা অভিনেত্রী কোনও প্রযোজক কিংবা পরিচালকের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হয়েছেন। এক সপ্তাহ পর সেই অভিনেতা অথবা অভিনেত্রী যদি এই সম্পর্কের বিনিময়ে কাজ চান, আর উলটোদিকের মানুষটা যদি কেবল শারীরিক সম্পর্কের বিনিময়ে তা দিতে না রাজি হন তখনই বেশিরভাগ ক্ষেত্রে অভিযোগ ওঠে। এ বিষয়টি অনেকটা মুদ্রার এপিঠ-ওপিঠের মতো বলেই মনে করেন একতা।’

প্রসঙ্গত, কিছুদিন আগেই ধর্ষণের মতো মারাত্মক অভিযোগ ওঠে একতার বাবা তথা বর্ষীয়ান বলিউড অভিনেতা জিতেন্দ্র বিরুদ্ধে। অভিযোগটি আনেন অভিনেতারই এক ভাইজি। তাঁর দাবি ছিল, ২৮ বছর বয়সে জিতেন্দ্র তাঁকে ধর্ষণ করেন। কিন্তু তখন পারিবারিক লজ্জার কথা ভেবে তিনি প্রতিবাদ জানাতে পারেননি। তাই ৬৫ বছর বয়সে নিজের নিগ্রহের বিরুদ্ধে সরব হলেন। যদিও যাবতীয় অভিযোগ অস্বীকার করা হয়েছে জিতেন্দ্রর তরফে। একতার কথার সুরেও যেন প্রচ্ছন্নভাবে সেই বার্তাই শোনা গেল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here